in ,

রাশিয়া-ইউক্রেন আলোচনা শুরু

আন্তর্জাতিক মাধ্যম: বেলারুশ সীমান্তে ইউক্রেনের জনমানবহীন প্রিপায়াত শহরে রাশিয়ার সাথে শান্তি আলোচনা শুরু হয়েছে বলে নিশ্চিত করেছেন ইউক্রেনের প্রেসিডেন্টের উপদেষ্টা মিখাইলো পোদোলিয়াক। সোমবার দুই দেশের প্রতিনিধিরা বেলারুশের সীমান্তে আলোচনা করতে পৌছান।

ক্রেমলিনের সূত্রগুলো জানিয়েছে, যুদ্ধবিরতি অথবা সেনা প্রত্যাহারই হবে বৈঠকে আলোচনার মূল ইস্যু। এর আগে ক্রেমলিনের প্রেস সচিব দিমিত্রি পেশকভ জানিয়েছিলেন, রাশিয়া ইউক্রেনের যুদ্ধ বিরতির শর্তের ব্যাপারে আলোচনায় বসতে রাজি হয়েছে।
এদিকে ইউক্রেনের ডনবাস অঞ্চলে রুশ ভাষাভাষী অধ্যুষিত বিচ্ছিন্নতাকামী দুটি অঞ্চল দনেয়স্ক ও লুহানস্ককে স্বাধীন দেশের স্বীকৃতি দিয়েছে রাশিয়া। এ সিদ্ধান্ত মেনে নেওয়াকে কিয়েভের কাছে যুদ্ধবিরতির অন্যতম শর্ত হিসেবে রাখতে পারে মস্কো।

ইউক্রেন জুড়ে লড়াই অব্যাহত থাকায় আজ সোমবার পুরো দিন এক গুরুত্বপূর্ণ সময় হবে বলে উল্লেখ করেছেন ইউক্রেনীয় প্রেসিডেন্ট ভলোদমির জেলেনস্কি।

কিয়েভ থেকে বিবিসির সাংবাদিক আবদুজালিল আব্দুরাসুলভ বলছেন, ইউক্রেনীয় কর্তৃপক্ষ ঘোষণা করেছে যে, তাদের প্রতিনিধিদল রাশিয়ার প্রতিনিধি দলের সাথে আলোচনা করতে ইউক্রেন-বেলারুশ সীমান্তে পৌঁছেছে। তারা বলেছেন, তাদের কাছে প্রধান বিবেচ্য বিষয় একটি যুদ্ধবিরতি এবং ইউক্রেনের ভূখণ্ড থেকে সৈন্য প্রত্যাহার।

এর আগে জানা যায় যে, লজিস্টিক এবং নিরাপত্তা সংক্রান্ত সমস্যার কারণে আলোচনা পেছানো হয়েছে।

রোববার ইউক্রেনের প্রেসিডেন্ট জেলেনস্কি বলেন, তিনি এই আলোচনা থেকে কোন অগ্রগতি আশা করেন না। তবে একইসাথে তিনি বলেন, খুব ছোট হলেও তাদের এই সুযোগ কাজে লাগানোর চেষ্টা করা উচিৎ যাতে কেউ ইউক্রেনকে যুদ্ধ বন্ধ করার চেষ্টা না করার জন্য দোষ দিতে না পারে।

Leave a Reply

Your email address will not be published.

GIPHY App Key not set. Please check settings

আফগানিস্তানের কাছে পরাজয় বাংলাদেশ

Russia-Ukraine talks begin