in ,

শ্রীলঙ্কায় জরুরি অবস্থা জারি

শ্রীলঙ্কায় জরুরি অবস্থা জারি- আল জাজিরা

আন্তর্জাতিক মাধ্যম: অর্থনৈতিক সংকটে জর্জরিত শ্রীলঙ্কা। এরই মধ্যে এই সংকট প্রবল আকার ধারণ করেছে। অনেকে বলছেন শ্রীলঙ্কা দেউলিয়া হওয়ার পথে। এমন অবস্থায় দেশজুড়ে খাদ্য, ওষুধসহ নিত্যপণ্যের দাম সাধারণ মানুষের নাগালের বাইরে। এরই মধ্যে দেশটির রাজধানীতে জারি করা হয়েছে কারফিউ। এবার দেশজুড়ে জারি করা হয়েছে জরুরি অবস্থা।

শ্রীলঙ্কার প্রেসিডেন্ট গোটাবায়া রাজাপাকসে দেশে জরুরি অবস্থা ঘোষণা করেছেন। প্রেসিডেন্টের বাসভবন ঘেরাওয়ের একদিন পর নিরাপত্তা বাহিনীকে বিশেষ ক্ষমতা দিতেই এমন উদ্যোগ নিলেন। খবর আল জাজিরার

দেশে নিত্যপণ্যের দাম আকাশ ছোঁয়ায় সাধারণ মানুষ ক্ষিপ্ত হয়ে পড়েছেন। এই প্রেক্ষাপটে সেনাবাহিনীকে সন্দেহভাজনদের গ্রেপ্তার এবং বিনাবিচারে দীর্ঘ সময় আটক করার অনুমতি দিয়ে কঠোর আইন কার্যকর করলেন রাজাপাকসে।

প্রেসিডেন্ট ঘোষণায় বলেন, ‘জনশৃঙ্খলা রক্ষা এবং মানুষের জীবনের জন্য প্রয়োজনীয় সরবরাহ ও পরিষেবার রক্ষণাবেক্ষণের জন্য জরুরি অবস্থা ঘোষণা করা হয়েছে।

২ কোটি ২০ লাখ জনসংখ্যার দ্বীপ দেশটির অবস্থা টালমাটাল। তলানিতে এসে ঠেকেছে রাজকোষ। মুদ্রা হারিয়েছে মান। শ্রীলঙ্কান রুপি আর ছাপানো হবে না এমন কথাও ভাবা হচ্ছে। অন্যতম সমস্যা বিদ্যুৎ। দিনের বেশিরভাগ সময়ই চলছে ব্ল্যাকআউট।

রয়টার্সের খবর অনুযায়ী, দ্বীপরাষ্ট্রটি ইতিহাসের সবচেয়ে খারাপ আর্থিক পরিস্থিতির সঙ্গে লড়াই করছে। দেশটি খাদ্য ও জ্বালানিসহ প্রয়োজনীয় আমদানির জন্য অর্থ জোগাড়ের লড়াই করছে।

দেশব্যাপী দৈনিক ১৩ ঘণ্টা বিদ্যুৎ থাকছে না। বিদ্যুৎ না থাকায় বাধ্য হয়েই পুরনো আমলে ফিরছেন দেশটির সাধারণ মানুষ। এখন দেশটির নাগরিকরা কাপড় ইস্ত্রি করার জন্য পুরনো পদ্ধতিতে কাঠকয়লার আয়রন মেশিন ব্যবহার করছে। পাশাপাশি অন্ধকার দুর করতে ব্যবহার হচ্ছে কেরোসিনের বাতি।

জীবন রক্ষাকারী ওষুধের মজুদ শেষ হয়ে যাওয়ায় রুটিন সার্জারিসহ জরুরি বিভিন্ন চিকিৎসা স্থগিত করা হয়েছে।

Leave a Reply

Your email address will not be published.

GIPHY App Key not set. Please check settings

তিন বিকল্প ইমরান খানের হাতে

মিল্কী হত্যার শোধ নিতেই টিপুকে খুন